ইংল্যান্ড সরকার ৩৫ লাখ টেষ্ট কিট কিনেছে

ইংল্যান্ডে ঘরে বসে করোনার টেস্ট কিট আসছে

টেস্টের কিট পৌঁছে দেবে অ্যামাজন

ইংল্যান্ডে স্বেচ্ছায় আইসোলেশনে আছেন এবংকরোনাভাইরাসের লক্ষণ আছে এমন ব্যক্তিদের জন্য ঘরে বসে মাত্র ১৫ মিনিটে কভিড-১৯ পরীক্ষা করার মিলিয়ন টেষ্ট কিট পৌঁছে দেবে অ্যামাজন। একই সঙ্গে প্রতিষ্ঠানটি রাস্তায় এ টেষ্ট কিট বিক্রি করবে বলে জানিয়েছে পাবলিক হেলথ ইংল্যান্ড (পিএইচই)।
হেলথ সেক্রেটারি ম্যাট হ্যানকক বলেন, ইংল্যান্ড সরকার ৩৫ লাখ টেষ্ট কিট কিনেছে এবং আরও কয়েক লাখ কিট আনা হচ্ছে। অবশ্য পিএইচই’র পরিচালক অধ্যাপক শ্যারন পিকক সায়েন্স অ্যান্ড টেকনলজি কমিটির বৈঠকে সংসদ সদস্যদের বলেছেন, আগামী সপ্তাহের মধ্যে ইউকেতে গণ পরীক্ষা করা সম্ভব হবে।

উল্লেখ্য, যুক্তরাজ্যের একদল বিজ্ঞানী করোনাভাইরাসের অ্যান্টিবডি বাসায় বসে নিজেই পরীক্ষা করা যায় এমন একটি টেস্ট কিট তৈরি করেছন বলে জানিয়েছিলেন। তাদের এ উদ্যোগ করোনার বিস্তার রোধে এটা মাইলফলক হবে।
ন্যাশনাল ইনফেকশন সার্ভিস ও পাবলিক হেলথ ইংল্যান্ড (পিএইচই) এর পরিচালক প্রফেসর শ্যারন পিকক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি কমিটিকে বলেছেন, এটি দোকানে সরবরাহ করার জন্য প্রস্তুত করা হবে। প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে, কয়েক দিনের মধ্যে মানুষ ঘরে বসেই করোনা পরীক্ষা করতে পারবেন। প্রাথমিকভাবে ৩৫ লাখ টেস্ট কিট তৈরি করা হবে এবং এটা খুব দ্রুতই বাজারে আসবে।
তিনি আরও বলেছিলেন যে, পরীক্ষাগুলি চিকিৎসক ও নার্সদের মতো গুরুত্বপূর্ণ স্বাস্থ্য কর্মীদের জন্য খুবই উপকারি হবে। তারা যদি নিজেরাই ঘরে বসে জানতে পারে তাদের করোনা আছে কি-না এবং তাদের মাঝে যদি অ্যান্টিবডিগুলি তৈরি করে তবে তারা কাজে ফিরে যেতে পারবেন।
কোভিড-১৯ রোগ আছে কিনা তা পরীক্ষা করে দেখার জন্য লোকদের এই পরীক্ষাগুলিতে আঙুলে একটি ছোট্ট ছিদ্র করতে হবে। এটা খুবই ছোট একটা কাজ।
প্রফেসর পিকক বলেন, অক্সফোর্ডের পরীক্ষাগারে বেশ কিছু পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হচ্ছে, এবং সফল হলে ফার্মেসি এবং অ্যামাজনের মতো কোনও অনলাইন প্লাটফর্মে খুচরা বিক্রেতার মাধ্যমে এগুলো বিক্রি করা যেতে পারে।
তিনি আরও যোগ করেছেন, আমাদের মনে হচ্ছে এটা কাজ করবে। আশা করি এটা কাজ করবে। এটা পরীক্ষা করা খুব ছোট একটি বিষয় এবং আমি আশা করি এটি এই সপ্তাহের মধ্যেই পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে বাজারে আসবে।
অদূর ভবিষ্যতে লোকেরা এমন কোনও পরীক্ষার অর্ডার করতে সক্ষম হবে যা তারা নিজেরাই পরীক্ষা করতে পারে বা পরিচালনা করতে পারে। এটা জাস্ট তাদের হাতের আঙুলে ছোট্ট একটা ছিদ্র করেই করা সম্ভব। এবই খুবই সহজ।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close