যে কারণে করবিনের পরাজয় চায় ইসরাইল

আগামী সপ্তাহে ব্রিটেনের নির্বাচনে লেবার পার্টির নেতা জেরেমি করবিন হেরে যান, এমন প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন ইসরাইলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি করবিনের বিরুদ্ধে ইসরাইলবিদ্বেষী নীতি উসকে দেয়ার অভিযোগ এনেছেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইসরাইল কাটজ বলেন, ‘আমি অভ্যন্তরীণ নির্বাচনে হস্তক্ষেপ করব না তবে আমি ব্যক্তিগতভাবে আশা করি যে ইহুদিবিরোধী করবিন নির্বাচিত হবেন না … আমি আশা করি, অন্য পক্ষ জিতবে।’ করবিন জয়ী হলে অনেক ব্রিটিশ ইহুদি স্বেচ্ছায় দেশত্যাগ করতে পারে এমন আশঙ্কা ইসরাইলের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর।

নির্বাচনকে সামনে রেখে ইহুদি নেতারা লক্ষ্য বানিয়েছে বিরোধীদলীয় নেতা জেরেমি করবিন এবং তার দল লেবার পার্টিকে। ইহুদি সম্প্রদায়ের ধর্মগুরু, রাবাইদের প্রধান, চিফ রাবাই এপরাহিম মিরভিজ বলেছেন, করবিন ‘প্রধানমন্ত্রী পদের জন্য অযোগ্য’, লেবার পার্টি নির্বাচিত হলে ইহুদিরা নিরাপত্তাহীন হয়ে পড়বে। নির্বাচনের ঠিক দুই সপ্তাহ আগে ভোটারদের প্রভাবিত করতে পারে, একজন ধর্মীয় নেতার এমন মন্তব্যকে নজিরবিহীন বলে অভিহিত করেছে গণমাধ্যম ও অন্য রাজনৈতিক দলগুলো।

তিনি আরো বলেন, ‘কাকে ভোট দেয়া উচিত সেটা বলা আমার কাজ নয়; কিন্তু আমি বলতে চাই ১২ ডিসেম্বর সবাই বুঝে শুনে ভোট দেবেন। আমাদের জাতির আত্মাই আজ বিপদে রয়েছে। অন্য দিকে কাটজ মনে করেন, করবিন নির্বাচিত হলে ইসরাইলের সাথে ব্রিটেনের গোয়েন্দা তথ্য আদান-প্রদানসহ নিরাপত্তা সম্পর্কের অবনতি ঘটতে পারে।

বিশ্লেষকদের মতে, লেবার পার্টি ইহুদিদের ভোট টানতে সমস্যায় পড়বে। ঠিক একইভাবে কনজারভেটিভ পার্টির ভেতরে ইসলামবিদ্বেষের অভিযোগের কারণে তাদেরও মুসলিমদের ভোট পেতে অসুবিধা হবে। দ্যা গার্ডিয়ান জানিয়েছে, ইসলামবিদ্বেষের প্রশ্নটি কনজারভেটিভ পার্টিকে ক্ষতিগ্রস্ত করতে পারে। কেননা ৩০টির মতো আসনে ভোটের ফল মুসলিম জনগোষ্ঠীর ভূমিকার ওপর নির্ভরশীল।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close