উন্নয়ন ও অপূর্ব সৌন্দর্যের লীলাভূমি

সংযুক্ত আরব আমিরাতের জাতীয় দিবস আজ

আজ ২ ডিসেম্বর সংযুক্ত আরব আমিরাতের ৪৮তম জাতীয় দিবস। ১৯৭১ সালের এদিনে ব্রিটিশ সাম্রাজ্য থেকে দেশটি স্বাধীনতা লাভ করে। সে থেকেই এ দিনটিকে জাতীয় দিবস হিসেবে পালন করে আসছে সংযুক্ত আরব আমিরাত।
স্বাধীনতা লাভের পর প্রেসিডেন্ট শেখ জায়েদ বিন সুলতান আল নাহিয়ান অর্থনৈতিক অবকাঠামোগত উন্নয়নে দেশটির উষর মরুভূমিকে রূপ দিয়েছেন সবুজের আঙিনায় অট্টালিকায় সাজানো এক স্বপ্নের রাজ্যে। দেশটির রূপকার প্রেসিডেন্ট শেখ জায়েদ বিন সুলতান আল-নাহিয়ান ছিলেন তার দেশের নাগরিকদের পাশাপাশি প্রবাসীদের জন্যও এক মানবরূপী রহমতের ছায়া। জনপ্রিয় সাবেক এই প্রেসিডেন্টের মাগফিরাত কামনায় দেশটির প্রতিটি মসজিদে প্রতি শুক্রবার জুমা নামাজের দ্বিতীয় খুতবায় দোয়া করা হয়।
প্রেসিডেন্ট শেখ জায়েদ বিন সুলতান আল নাহিয়ান ২০০৪ সালের ২ নভেম্বর ইন্তেকালের পর প্রেসিডেন্ট শেখ খলিফা বিন জায়েদ আল-নাহিয়ান তার পিতার অনুসৃত নীতিমালার আলোকে উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রেখে আরো কয়েক ধাপ এগিয়ে নেন আমিরাতকে। স্বাধীনতা লাভের কয়েক দশকে দেশটি এখন বিশ্বের উন্নত দেশের প্রথম সারিতে এবং অপূর্ব সৌন্দর্যের এক লীলাভ‚মি। দেশটির জাতীয় দিবস উপলক্ষে সরকারি ও বেসরকারিভাবে নেয়া হয়েছে ব্যাপক আয়োজন। দেশটির রূপকার সাবেক প্রেসিডেন্ট মরহুম শেখ জায়েদ বিন সুলতান আল নাহিয়ানের আলোকসজ্জিত ছবি ও দুবাইয়ে বিশ্বের সর্বোচ্চ টাওয়ার বুর্জ খলিফাসহ প্রতিটি প্রদেশ শহরের উঁচু উঁচু টাওয়ার ও প্রধান প্রধান সড়কগুলোকে সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। সর্বত্রই যেন সাজ সাজ রব। দিবসটি ঘিরে রয়েছে বর্ণাঢ্য মোটর শোভাযাত্রা, বিমান মহড়া ও আরব সংস্কৃতি ঐতিহ্যের নানা রকম অনুষ্ঠানমালা। দিবসটি উপলক্ষে আমিরাতের প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী ও প্রাদেশিক শাসকগণ পৃথক পৃথক বাণী দিয়েছেন। বাণীতে নাগরিকদের সুখ-শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করা হয়। দিবসটি উপলক্ষে ২ দিনের সরকারি ছুটি ঘোষণা করা হয়।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close