ব্রিটিশ সরকারের ক্ষমতা কমিয়ে দিলো সংসদ

মঙ্গলবার ব্রিটিশ সংসদের নিম্নকক্ষে অনুষ্ঠিত এক ভোটাভুটিতে সরকারের কর আরোপ করার একক ক্ষমতা কেড়ে নেয়া হয়েছে৷ প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে’র দলের কয়েকজন সাংসদও এর পক্ষে ভোট দিয়েছেন৷

মঙ্গলবার সংসদে ৩০৩-২৯৬ ভোটে একটি অর্থ বিল পাস হয়৷ ফলে কোনো চুক্তি ছাড়াই ব্রিটেনকে যদি ইইউ থেকে বের হয়ে যেতে হয়, তাহলে সেই সময় সংসদের অনুমোদন ছাড়া ব্রিটিশ সরকার কোনো ধরনের কর আরোপ করতে পারবে না৷

টেরেসা মে’র দলের কয়েকজন সাংসদএই বিলের পক্ষে ভোট দিয়েছেন৷ এর মানে হচ্ছে, প্রায় দেড় বছর ধরে ব্রিটেন ও ইইউ’র মধ্যে আলোচনা হওয়ার পর যে খসড়া চুক্তি প্রণীত হয়েছে, তা ব্রিটিশ সংসদে পাস না-ও হতে পারে৷ আগামী মঙ্গলবার সংসদে ঐ খসড়া চুক্তি নিয়ে ভোটাভুটি হবে৷ তার আগে বুধবার থেকে সাংসদরা ঐ চুক্তি নিয়ে আলোচনা করবেন৷

এর আগে চুক্তিটি পাস করানোর মতো পর্যাপ্ত সাংসদের ভোট পাওয়া যাবে না, এই আশঙ্কায় ১১ ডিসেম্বরের ভোটাভুটি স্থগিত করেছিলেন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী৷ তিনি তার দলের বিদ্রোহী সাংসদদের এই বলে সতর্ক করে দিচ্ছেন যে, মঙ্গলবারের ভোটে পরাজয় হলে দুটি ঘটনা ঘটতে পারে৷ এক, চুক্তি ছাড়াই ব্রিটেনকে ইইউ থেকে বের হয়ে যেতে হতে পারে৷ দুই, ইইউতে থেকে যেতে হতে পারে৷ কিন্তু এরকম সতর্কবাণীও প্রধানমন্ত্রীর দলের কয়েকজনকে অর্থ বিলের পক্ষে ভোটদান থেকে বিরত রাখতে পারেনি৷

অবশ্য অর্থ বিলে পরাজয়ের বিষয়টিকে অত গুরুত্ব দিতে চাইছে না ব্রিটিশ সরকার৷ তারা বলছে, কর আরোপের বিষয়টি যখন প্রয়োজন হবে তখন ভেবে দেখা হবে৷ সরকারের একজন মুখপাত্র বলেছেন, ‘‘ব্রিটেন যে মার্চের ২৯ তারিখ ইইউ থেকে বের হয়ে যাবে, এই সংশোধনীর (সরকারের কর আরোপ ক্ষমতা কমানো) কারণে সেই সত্যে কোনো পরিবর্তন আসবে না৷ এবং এটি সরকারকে কর সংগ্রহ থেকে দূরে রাখতে পারবে না৷”

তিনি বলেন, যে-কোনো ব্রেক্সিট পরিস্থিতিতে বাধাহীনভাবে কর ব্যবস্থা চালিয়ে নিতে আমরা সংসদের সঙ্গে কাজ করে যাবো৷ -ডয়চে ভেলে

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close