অ্যামাজন যুক্তরাজ্যে কম ট্যাক্স দিয়েছে

ব্রিটিশ এমপিদের তোপের মুখে জেফ বেজোস

নেতৃস্থানীয় ব্রিটিশ এমপিগণ বিশ্বের সর্বোচ্চ ধনী ব্যক্তি জেফরি প্রেস্টন ওরফে জেফ বেজোসের নিন্দা করেছেন, তার কোম্পানী অ্যামাজন যুক্তরাজ্য সরকারকে এতো কম কর প্রদানের জন্য। অ্যামাজন গত বছর মাত্র ২৯৩ মিলিয়ন পাউন্ড ট্যাক্স প্রদান করে। ‘রেসপনসিবল ট্যাক্স’ সংক্রান্ত সর্বদলীয় পার্লামেন্টারী গ্রুপের প্রেসিডেন্ট লেবার পার্টির এমপি মার্গারেট হডজ এবং টোরি এমপি এন্ড্রু মিচেল বলেন,এদেশে আরো বেশী কর প্রদান করা বেজোসের একটি নৈতিক দায়িত্ব।

হডজ বলেন, মুনাফার ওপর কর প্রদানে তার ব্যর্থতা চরম নিন্দনীয়। কোম্পানীটি তার মুনাফা নিম্ন কর এখতিয়ার এলাকায় পাঠানোর জন্য পরিকল্পিতভাবে অস্পষ্ট আর্থিক কাঠামো ব্যবহার করেছে। তিনি যুক্তরাজ্যে আরো ৭ হাজার লোক ভাড়া করতে পারতেন, তার একটি সুশিক্ষিত এবং সুষ্ঠু কর্মী বাহিনীর প্রয়োজন রয়েছে।তিনি পাবলিক সার্ভিসসমূহে বিনিয়োগে অবদান রাখেননি কেনো?
যুক্তরাজ্যে ২০১৯ সালে অ্যামাজনের কার্যক্রমে ২৬ শতাংশ উত্থান হলেও অর্থাৎ ১৩.৭ বিলিয়ন পাউন্ডে উন্নীত হলেও অ্যামাজনের নিম্ন কর বিল এসেছে।অথচ এর আগের তা ছিলো ১০.৯ বিলিয়ন পাউন্ড।
লকডাউনের সময় গ্রাহকেরা ঘরবন্দী থাকায় কোম্পানীর অর্ডারের সংখ্যা বৃদ্ধি পায়। অবশ্য অ্যামাজন যুক্তরাজ্যে কী পরিমাণ মুনাফা করেছে, তা প্রকাশ করেনি। বরং বলেছে, অপারেটিং প্রফিট তুলনামূলকভাবে স্বল্প।
অ্যামাজন জানায়, বর্ধিত পুঁজি ব্যায়, গবেষণা ও উন্নয়ন খরচের কারণে চলতি বছরের কর্পোরেশন ট্যাক্স পেমেন্ট অর্থাৎ কর্পোরেশন কর পরিশোধের পরিমাণ হ্রাস পেয়েছে। হডজ্ চান যুক্তরাজ্য একটি বৈশ্বিক টেক ট্যাক্স বাস্তবায়নে নেতৃস্থানীয় ভূমিকা পালন করুক, যাতে অ্যামাজন, ফেইসবুক ও গুগলের মতো তার প্রতিদ্বন্দ্বীরা অধিক কর প্রদান করে।
বার্কিং-এর এই এমপি ব্যাংকার আইনজীবি এবং একাউন্ট্যান্টদের বিরুদ্ধে একটি অভিযান পরিচালনার আহবান জানান, যারা দুনিয়াজুড়ে তাদের গ্রাহকদের জন্য একটি জটিল কর কাঠামো তৈরী করেছেন।
তিনি বলেন, এসবের পেছনে হোতাদের বিরুদ্ধেও অভিযান প্রয়োজন। এক্ষেত্রে আইনে ফাঁক ফোকর খুঁজে বের করার জন্য বিপুল সংখ্যক মেধাবী ব্যাংকার, আইনজীবি এবং একাউন্ট্যান্টকে ভাড়া বা নিয়োগ করা হয়।
গত বছর অ্যামাজন বিতরণ কেন্দ্রসমূহের পোর্টফোলিও সম্প্রসারণ করায় তার যুক্তরাজ্য অবকাঠামো ৬৯০ মিলিয়ন পাউন্ডেরও বেশী বিনিয়োগ করে এবং ম্যানচেস্টারে তার কর্পোরেট অফিস চালু করে।
গ্রুপটি জানায়, ২০১০ সালে থেকে এ পর্যন্ত তারা সরাসরি ২৩ বিলিয়ন পাউন্ডের বেশী বিনিয়োগ করেছে তাদের যুক্তরাজ্যের কার্যক্রম।
গত সপ্তাহে কোম্পানাটি তাদের বিকাশ কৌঁশলে সহায়তার জন্য চলতি বছর আরো ৭ হাজার স্টাফ ভাড়া করার পরিকল্পনার কথা ঘোষণা করেছে। এ সপ্তাহের আগে প্রতিষ্ঠানটি তাদের যুক্তরাজ্য কার্যক্রমের নতুন বস হিসেবে জন বাউমফ্রের নাম ঘোষণা করে। তিনি গত নভেম্বরে বর্তমান কাউন্ট্রি ম্যানেজারের কাছ থেকে দায়িত্বভার গ্রহণ করেন।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close