‘তাজমহল শিবমন্দির নয় একটি সমাধিক্ষেত্র’

tajmahalতাজমহল কোনোভাবেই শিবমন্দির নয়, তাজমহল একটি সমাধিক্ষেত্র- যা সম্রাট শাহজাহান তাঁর স্ত্রী মমতাজের মৃত্যুর পর বানিয়েছিলেন। পরে শাহজাহানের সমাধিও তাজমহলে করা হয়। গতকাল বুধবার ভারতের পুরাতাত্ত্বিক সংস্থা আর্কিওলজিক্যাল সার্ভে অব ইন্ডিয়া আগ্রা হাইকোর্টে এক হলফনামা দিয়ে এই কথা জানিয়েছে।
আগ্রার আদালতে হলফনামা দিয়ে আইনজীবী রাজেশ কুলশ্রেষ্ঠ ও আর্কিওলজিক্যাল সার্ভে অব ইন্ডিয়ার আইনজীবী অঞ্জনি শর্মা জানান, সম্রাট শাহজাহান তাঁর স্ত্রী মমতাজের মৃত্যুর পর মমতাজের স্মৃতিতে এই সমাধি সৌধটি বানান।
অঞ্জনি শর্মা বলেন, ‘তাজমহলের কোন অংশ পর্যটকদের জন্য খোলা থাকবে আর কোন অংশ বন্ধ থাকবে না তা নিয়ে এরইমধ্যে সিদ্ধান্ত জানিয়ে দিয়েছেন ভারতের সুপ্রিম কোর্ট। তাই ওই বিষয়টি পর্যালোচনার দরকার নেই।’ তিনি বলেন, ‘তাজমহল নিয়ে বিতর্ক দানা বেঁধেছিল স্বঘোষিত ঐতিহাসিক পিএন ওকের লেখা একটি গ্রন্থকে ঘিরে। যেখানে তাজমহলকে আসলে শিবমন্দির বলে দাবি করা হয়েছিল। ওই গ্রন্থটি প্রকাশের পর কিছু রাজনৈতিক নেতা ও মন্ত্রীদের বিবৃতিকে ঘিরে তাজমহল সংক্রান্ত বিতর্ক আরো উসকে দেওয়া হয়। এমনকি তাজমহলকে মন্দির হিসাবে মেনে নিয়ে তোজোমহল ঘোষণা করার দাবি জানিয়ে আগ্রা কোর্টে লাক্ষৌয়ের প্রায় ছয়জন আইনজীবী মামলা দায়ের করেন। তাজমহলকে পুরোপুরি হিন্দু মন্দির বানানোর জন্য শিবসেনা তাজমহল সংলগ্ন দশেরা ঘাটে শিবের পূজাও শুরু করে দেয়। এরই পরিপ্রেক্ষিতে ভারতের পুরাতাত্তি¡ক সংস্থা আর্কিওলজিক্যাল সার্ভে অব ইন্ডিয়া আগ্রা হাইকোর্টে এক হলফনামা দিয়ে জানিয়ে দেন, তাজমহল শিবমন্দির নয়, তাজমহল আসলে সম্রাট শাহজাহানের তৈরি সমাধি সৌধ।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close