৮মাসে তুরস্কের বিমানবন্দরগুলোর ৫ কোটি ২৩ লাখ যাত্রী পরিবহন

চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে আগস্টের মধ্যে তুরস্কের বিমানবন্দর হয়ে ট্রানজিট যাত্রীসহ মোট যাত্রী পরিবহন হয়েছে ৫ কোটি ২৩ লাখ। তুরস্কের বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষের বরাতে গত শনিবার এ তথ্য নিশ্চিত হয়েছে। জেনারেল ডিরেক্টরেট অব স্টেট এয়ারপোর্টস অথরিটি (ডিএইচএমআই) জানায়, গত বছরের একই সময়ের তুলনায় চলতি বছরের প্রথম আট মাসে বিমানবন্দরগুলোর যাত্রী পরিবহন ৬২ দশমিক ৯ শতাংশ কমেছে। নভেল করোনাভাইরাস মহামারী নিয়ন্ত্রণে নেয়া বৈশ্বিক লকডাউন পদক্ষেপের ফলে বিমানবন্দরগুলোর যাত্রী পরিবহন মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। গত বছরের একই সময়ের তুলনায় জানুয়ারি থেকে আগস্টে তুরস্কের অভ্যন্তরীণ যাত্রী পরিবহন ৫২ দশমিক ৩ শতাংশ কমে ৩ কোটি ২২ লাখ ৭০ হাজারে দাঁড়িয়েছে। আন্তর্জাতিক যাত্রী পরিবহন হয়েছে ১ কোটি ৯৯ লাখ ৮০ হাজার, যা গত বছরের চেয়ে কমেছে ৭২ দশমিক ৫ শতাংশ।
প্রথম আট মাসে তুরস্কের বিমানবন্দরগুলোয় ৬ লাখ ৭২ হাজার ৪০৮টি উড়োজাহাজ অবতরণ করেছে, যা গত বছর ছিল ১৩ লাখ ৬০ হাজার। কার্গো পরিবহন হয়েছে ১৪ লাখ ৭০ হাজার টন, যা একই সময়ে গত বছর কার্গো পরিবহন হয়েছিল ২৭ লাখ টন।
গত ডিসেম্বরে চীনে আঘাত হানা নভেল করোনাভাইরাস সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে। এতে থমকে দাঁড়িয়েছে বৈশ্বিক অর্থনৈতিক কার্যক্রম। কভিড-১৯ সংক্রমণ ঠেকাতে নেয়া লকডাউনে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত খাতগুলোর মধ্যে রয়েছে ভ্রমণ, এভিয়েশন, পর্যটন ও ম্যানুফ্যাকচারিং। এভিয়েশন খাত মহামারীপূর্ব সময়ের স্তরে পৌঁছতে ২০২৪ সাল লেগে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করছেন এ খাতের নীতিনির্ধারকরা।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close