হাসপাতাল ছাড়লেন ওবায়দুল কাদের

সিঙ্গাপুরস্থ মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের এমপিকে সিঙ্গাপুর সময় বেলা ৩টার দিকে হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র দেয়া হয়। শুক্রবার সিঙ্গাপুর সময় বেলা ৩টার দিকে ছাড়পত্র পেয়ে এর কিছুক্ষণ পরেই একটি গাড়িতে করে হাসপাতাল ছাড়েন তিনি। নিজে হেঁটেই গাড়িতে উঠেন তিনি। এ সময় উপস্থিত সবাইকে হাত নেড়ে শুভেচ্ছা জানান আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক। এ সময় ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে ছিলেন তার স্ত্রী ও আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা।

ওবায়দুল কাদেরের হাসপাতাল ছাড়ার খবর নিশ্চিত করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা আবু নাসের টিপু। তবে হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেও এখনই দেশে আসছেন না সেতুমন্ত্রী। ফলোআপ চিকিৎসার জন্য আরও কিছু দিন তিনি সিঙ্গাপুরে থাকবেন। হাসপাতালের পাশেই ওবায়দুল কাদেরের পরবর্তী চিকিৎসার জন্য জন্য বাসা ভাড়া করা হয়েছে। তিনি সেখানেই উঠেছেন। ফলোআপ ট্রিটমেন্টের জন্য চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে সেখানে থাকবেন তিনি। চিকিৎসকের অনুমতি পেলে শিগগিরই তাকে দেশে আনা হবে বলেও জানানো হয়।

গত ৩ মার্চ সকালে শ্বাসকষ্ট নিয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বিএসএমএমইউ) করোনারি কেয়ার ইউনিটে (সিসিইউ) ভর্তি হন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক। সেখানে এনজিওগ্রাম করার পর তার করোনারি ধমনিতে তিনটি ব্লক পান চিকিৎসকরা। উন্নত চিকিৎসার জন্য পরদিনই তাকে সিঙ্গাপুর নেওয়া হয়। গত ২০ মার্চ মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে মন্ত্রীর বাইপাস সার্জারি সম্পন্ন হয়। শারীরিক অবস্থার উন্নতি হলে গত ২৬ মার্চ ওবায়দুল কাদেরকে হাসপাতালের আইসিইউ থেকে কেবিনে নেওয়া হয়।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close