মুক্তি পেল ‘হাসিনা এ ডটার’স টেল’

বঙ্গবন্ধু পরিবারের সাদামাটা গল্প

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জীবনের গল্প। একজন সাধারণ মানুষ কেমন করে হয়ে উঠলেন বাংলাদেশের মানুষের আশা-আকাক্সক্ষার প্রতীক। প্রতিকূল পরিবেশে সংগ্রাম করে কিভাবে আদায় করলেন সমাজের বঞ্চিত মানুষের অধিকার। যেখানে প্রধানমন্ত্রী ছাড়াও তার পরিবারের সদস্যদের দেখা যায়। উঠে এসেছে শেখ হাসিনার সাধারণ জীবনের অসাধারণ কিছু মুহূর্ত। তিনি কখনও মেয়ে, কখনও মা, কখনও বোন আবার কখনও জনতার নেত্রী।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পরিবার ও ব্যক্তিজীবন নিয়ে নির্মিত ‘হাসিনা: এ ডটার’স টেল’ প্রামাণ্য চিত্রটি মুক্তি পায় শুক্রবার। নির্মাতা পিপলু খান জাদুকরের মতো মোহাচ্ছন্ন করে রেখেছেন যেন এ সিনেমায়। গল্প বলা, সিনেমাটোগ্রাফি, মিউজিক, এডিটিং অসাধারণ। শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানার বলে চলা গল্পে কখনও চোখে জল আসে, অনুপ্রেরণা জাগে আসবে হাসিও। বহুবার শুনেছি ‘আমার সাধ না মিটিলো’ গানটি। কিন্তু এ ছবিতে শোনার মতো করে হাহাকার জন্মায়নি কখনো। শূন্য হাতের অলস মানুষ থেকে বিশ্ব নেতৃত্বে শক্তিশালী নেতা হয়ে ওঠা শেখ হাসিনাকে খুব স্পষ্ট করে তুলে ধরা হয়েছে এতে। রাজনৈতিক ভাবনার বাইরে গিয়ে ছবিটি দেখা যেতে পারে। এক জীবনে বড় হবার, টিকে থাকার, মানুষকে বিশ্বাস করার অনুপ্রেরণা মিলবে। এটি সাদা চোখে সাদামাটা বঙ্গবন্ধু পরিবারের গল্প।

আওয়ামী লীগের গবেষণা প্রতিষ্ঠান সেন্টার ফর রিসার্চ এ্যান্ড ইনফরমেশন (সিআরআই) ও এ্যাপেলবক্স ফিল্মসের যৌথ প্রযোজনায় এটি নির্মিত হয় ছবিটি। রেজাউর রহমান খান পিপলুর পরিচালনায় ছবিটির চিত্রগ্রহণ করেছেন সাদিক আহমেদ।

‘হাসিনা: এ ডটার’স টেল’ ডকুফিল্মটির দৈর্ঘ্য ৭০ মিনিট। ছবিটি মুক্তি উপলক্ষে তারকা, সাংবাদিক ও বিশেষ ব্যক্তিদের জন্য প্রিমিয়ার শোয়ের আয়োজন করা হয়। সেখানে তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিমসহ বেশ কয়েক সংসদ সদস্য, সচিবরাও উপস্থিত ছিলেন।

ছবি দেখা শেষে তারানা হালিম বলেন, বঙ্গবন্ধুর পরিবার সম্পর্কে অজানা অনেক কিছুই জানা হলো। চমৎকার তথ্য নির্ভর একটি ছবি। এ প্রজন্মের জন্য অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করবে এটি।

‘আমার সাধ না মিটিলো, আশা পুরিলো, সকলই ফুরায়ে যায় মা’ শিল্পী পান্না লালের এই গানটি এত চমৎকার সব দৃশ্যের সঙ্গে আসছিল যে চোখের পাতা ভিজে যাচ্ছিল বারবার’ সিনেমাটি দেখে এভাবেই অনুভূতি প্রকাশ করলেন অভিনেত্রী তারিন।

অভিনেতা রিয়াজ বলেন, এক কথায় ছবিটি অসাধারণ বানিয়েছেন নির্মাতা। স্বাধীন এই দেশের জন্য বঙ্গবন্ধুর পরিবারের যে কত ত্যাগ লুকিয়ে আছে সেটা নতুন করে জানা হলো। প্রধানমন্ত্রী ও তার বোন যে কতোটা অসহায় সময় পার করেছেন তাদের জীবনে সেটাও জানলাম। বারবার চোখে জল এসেছে। আমি অভিনন্দন জানাই এই উদ্যোগকে। আর দেশের সবাইকে ছবিটি দেখারও আমন্ত্রণ জানাই।

অভিনেতা চঞ্চল চৌধুরী বলেন, দারুণ একটা ছবি হয়েছে। মন ভরে গেছে দেখে।
অভিনেত্রী শাহনাজ খুশি বলেন, এমন তথ্য নির্ভর মুভি আরও হওয়া দরকার। তাহলে নতুন প্রজন্ম দেশের ইতিহাসটা সঠিকভাবে জানতে পারবে।
অভিনেতা নিরব বলেন, চোখের পাতা ভিজে গেছে নিজের অজান্তেই। কী চমৎকার সব দৃশ্যায়ন। আমি মুগ্ধ।
অভিনেতা বাপ্পী চৌধুরী বলেন, কলিজা ছুঁয়ে গেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে নতুনভাবে আবিষ্কার করলাম।
এছাড়া উপস্থিত ছিলেন আনোয়ারা, বাপ্পারাজ, রিয়াজ, মেহের আফরোজ শাওন, সাকিব আল হাসান, শহীদুল আলম সাচ্চু প্রমুখ।

‘হাসিনা: এ ডটার’স টেল’ ছবিটি ঢাকার বসুন্ধরা সিটির স্টার সিনেপ্লেক্স, যমুনার ব্লকবাস্টার সিনেমাস ও মতিঝিলের মধুমিতা হলে মুক্তি পেয়েছে। চট্টগ্রামবাসীরা এই ডকু ড্রামাফিল্মটি দেখতে পারবেন সিলভার স্ক্রিনে। এরমধ্যে স্টার সিনেপ্লেক্সে শুক্রবার ও শনিবার শো দেখানো হবে সকাল সাড়ে এগারোটা, দুপুর একটা, বিকেল চারটা ৫০ মিনিট, সন্ধ্যা সাড়ে ছয়টা ও রাত আটটা ১০ মিনিটে। যমুনা ব্লকবাস্টারে আগামীকাল রবিবার থেকে প্রদর্শনী হবে। প্রথমদিন রাতে একটি শো থাকবে। এছাড়া অন্যান্য দিনে বিকেল পাঁচটা ও সন্ধ্যা সোয়া সাতটায় ক্লাব রয়ালে দেখানো হবে এই শো। ঢাকার মধুমিতা সিনেমা হলে শুক্রবার সকাল এগারোটা, বিকেল তিনটা, সন্ধ্যা পৌনে সাতটা ও রাত আটটায় মোট চারটি শো দেখানো হবে। এছাড়া অন্যান্য দিন এই সিনেমা হলে সকাল এগারোটা, বিকেল তিনটা ও সন্ধ্যা সোয়া সাতটায় দেখানো হবে।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close