ইউকেএক্সক্লুসিভ

পেশাজীবী ভিসা নিয়ে অনড় হোম অফিস

UKBAশত শত দক্ষ পেশাজীবীর ভিসা প্রত্যাখানের বিষয়ে আগের অবস্থানে অনড় রয়েছে যুক্তরাজ্য সরকার। প্রত্যাখাত হওয়া ভিসা আবেদনকারীদের অসদাচরণে দোষী সাব্যস্ত করার ঘোষণা দিয়েছে দেশটি। প্রথম পর্বের পর্যালোচনা শেষে অভিবাসন আইনের অনুচ্ছেদ ৩২২(৫) অনুযায়ী ৩৮টি আবেদন মঞ্জুরের কথা জানিয়েছে তারা। তবে দক্ষ অভিবাসীদের সংগঠন হাইলি স্কিলড মাইগ্রেন্টস গ্রুপ বলছে আগামী কয়েক সপ্তাহে বাকি থাকা ১৬৭১টি আবেদন পর্যালোচনা শেষ হলে এই সংখ্যা আরও বাড়বে।
যুক্তরাজ্য সরকার আইন অনুযায়ী ভিসা প্রত্যাখানের দাবি করলেও বিরোধীতাকারীদের দাবি, এই অনুচ্ছেদের সঠিক প্রয়োগ হচ্ছে না। দক্ষ অভিবাসীদের সংগঠন হাইলি স্কিলড মাইগ্রেন্টস গ্রুপ দীর্ঘদিন ধরে অধিকার রক্ষার আন্দোলন করে আসছে। চলতি বছরের প্রথম থেকেই ব্রিটিশ পার্লামেন্ট এর বাইরে বিক্ষোভ করছে সংগঠনটি। তাদের করা আবেদনের প্রেক্ষিতে যুক্তরাজ্যের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ইউরোপীয় ইউনিয়নের বাইরের দেশগুলো থেকে শিক্ষক, ডাক্তার, আইনজীবীদের প্রবেশাধিকারের বিষয়টি জাতীয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি কি না তা পর্যালোচনা করেছে।
প্রথম পর্বের পর্যালোচনা শেষে ব্রিটিশ অভিবাসনমন্ত্রী ক্যারোলিন নোকস এক চিঠিতে হাউস অব কমন্সের হোম অ্যাফেয়ার্স কমিটিকে এই বিষয়ে জানান। ওই চিঠিতে তিনি বলেন, ভিসা প্রত্যাখানের বিষয়ে তার দফতরের সিদ্ধান্তটি অভিবাসন আইনের অনুচ্ছেদ ৩২২(৫) অনুযায়ী বৈধ। চিঠিতে তিনি জানান, স্বরাষ্ট্র দফতর থেকে প্রত্যাখাত আবেদনের মধ্যে ৩৮টির ব্যাপারে তারা সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করে অনুমতি দিয়েছেন। তবে প্রত্যাখাত ভিসার বিষয়ে আবারও আবেদন করা যাবে বলেও জানানো হয়েছে ওই চিঠিতে।
নোকস বলেন, ‘আবেদনের সময় আয়ের বিষয়টি বিবেচনায় নেওয়া হলেও বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই মানবাধিকারের ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হয়েছে। কারণ এর আগে শুধু আয়ের ব্যাপার বিবেচনা করে ভুল হয়েছিল।’ মঞ্জুর করা ৩৮টি আবেদনের সংখ্যাকে কমিয়ে দেখাতে মন্ত্রীর প্রচেষ্টায় অবাক হয়েছে হাইলি স্কিলড মাইগ্রেন্টস গ্রুপ। গ্রুপটি বলছে, ৩৮টি ক্ষেত্রে আবেদনকারীরা জয়ী হয়েছেন-আগামী কয়েক সপ্তাহে বাকি থাকা ১৬৭১টি আবেদন পর্যালোচনা করা হলে এই সংখ্যা আরও বাড়বে।

এ সম্পর্কিত অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close