সুচিকে দেয়া সম্মাননা ফিরিয়ে নিলো লন্ডন

মিয়ানমারের বেসামরিক অংশের নেত্রী ও স্টেট কাউন্সেলর অং সান সুচিকে দেয়া সম্মাননা ফিরিয়ে নিয়েছে লন্ডন সিটি কর্পোরেশন (সিএলসি)। তিন বছর আগে তাকে ‘ফ্রিডম অব দ্য সিটি’ নামে সিএলসির সর্বোচ্চ এই সম্মাননা দেয়া হয়েছিল। মিয়ানমারে সংখ্যালঘু রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে তার আচরণের কারণে এই সম্মাননা প্রত্যাহার করে নেয়া হয়েছে। লন্ডনের ঐতিহাসিক কেন্দ্র ও আর্থিক জেলা পরিচালনাকারী সিএলসির নির্বাচিত প্রতিনিধিরা বৃহস্পতিবার এই সম্মাননা ফিরিয়ে নেয়ার পক্ষে ভোট দেন।
খবরে বলা হয়, গত ডিসেম্বরে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে (আইসিজে) রোহিঙ্গা নির্যাতন নিয়ে মিয়ানমারের বিরুদ্ধে গাম্বিয়ার করা এক মামলায় নিজ দেশের প্রতিনিধিত্ব করেন সুচি। তাতে দেশটির সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে আনা ধর্ষণ, হত্যা ও অন্যান্য অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেন তিনি। এরপরই তাকে দেয়া সম্মাননা ফিরিয়ে নেয়ার এই সিদ্ধান্ত নিল সিএলসি।
ফ্রিডম অব দ্য সিটি প্রদানকারী কমিটির প্রধান ডেভিড উট্টন বলেন, আজকের নজিরবিহীন এই সিদ্ধান্ত মিয়ানমারে মানবাধিকার লঙ্ঘনের প্রতি সিটি কর্পোরেশনের নিন্দার প্রতিফলন। (হেগে) শুনানিতে মিয়ানমার সরকারের সঙ্গে সুচির ঘনিষ্ঠ সহযোগিতা ও (কমিটির চিঠির) জবাব না দেয়ায় পুরস্কারটি ফিরিয়ে নেয়ার যুক্তি জোরদার হয়েছে।
প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালে মিয়ানমারে গণতন্ত্রের জন্য অসহিংস লড়াই ও শান্তিপূর্ণ সমাজ প্রতিষ্ঠার জন্য সুচিকে এই সম্মাননা দিয়েছিল সিএলসি। তিনি নিজেই পুরস্কারটি গ্রহণ করেছিলেন। সে সময়ও রোহিঙ্গাদের দুর্দশার জন্য তার বিরুদ্ধে শহরটিতে বিক্ষোভ হয়েছিল। তিনি ছাড়া বৃটেনের যুদ্ধকালীন নেতা উইন্সটন চার্চিল, নোবেলজয়ী নেলসন ম্যান্ডেলা ও বিজ্ঞানী স্টিফেন হকিংও সিএলসির সর্বোচ্চ এই সম্মাননায় ভূষিত হয়েছিলেন।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close