হিজাব পরে সংসদে অস্ট্রিয়ার নারী এমপির প্রতিবাদ

অস্ট্রিয়ায় হিজাব ও স্কার্ফ ব্যবহার নিষিদ্ধ করার বিরুদ্ধে দেশটির সংসদে একজন নারী এমপি মাথায় স্কার্ফ পরে প্রতিবাদ জানিয়েছেন। গতকাল (শুক্রবার) মারথা বিসম্যান নামে স্বতন্ত্র ওই নারী এমপি সংসদে বক্তৃতা দেয়ার সময় স্কার্ফ পরে প্রতিবাদ করেন।

বৃহস্পতিবার অস্ট্রিয়ার সরকার দেশটির প্রাইমারি স্কুলের মেয়েদের জন্য স্কার্ফ নিষিদ্ধ করে বিল পাস করে। এর আগে দেশটি নারীদের হিজাব পরার ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। এর প্রতিবাদে সংসদে হিজাব পরার পর মারথা বিসম্যান বলেন, “আমাদের উচিত হবে না আমাদের মধ্যে কোনো বাধা সৃষ্টি করা।”

অস্ট্রিয়ার সংসদে স্কার্ফ নিষিদ্ধ করার বিষয়ে বিলটির পক্ষে ভোট দেন ক্ষমতাসীন মধ্য ডানপন্থী দল পিপলস পার্টি এবং উগ্র ডানপন্থী ফ্রিডম পার্টির সব সদস্য। তবে বিরোধীদলের প্রায় সব সদস্যই এর বিপক্ষে ভোট দিয়েছেন। এর আগে ২০১৭ সালের মে মাসে মুসলিম মহিলাদের বোরকা ও নিকাব নিষিদ্ধ করে আইন পাস করে অস্ট্রিয়ার সরকার। বোরকা ও নিকাবের পর স্কার্ফ নিষিদ্ধ হওয়ায় মুসলমানরা হতাশা প্রাকশ করেছেন।

সরাসরি মুসলমানদের টার্গেট করে এই পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে। কারণ ইহুদিদের মাথায় টুপি এবং শিখদের পাগড়ি এই আইনের আওতার বাইরে রাখা হয়েছে। অস্ট্রিয়ায় প্রায় সাত লাখ মুসলমানের বসবাস রয়েছে।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close