প্রকাশ হলো ১০০ বলের ক্রিকেটের নিয়ম

অনেকদিন ধরে আলোচনায় থাকা ১০০ বলের ক্রিকেটকে এগিয়ে নিতে বড় পদক্ষেপ নিয়েছে ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। ইতোমধ্যে তারা এর কিছু নিয়ম কানুন প্রকাশ করেছে। ইংলিশ কাউন্টি ক্লাবগুলোর সম্মতিক্রমে ১০০ বলের ক্রিকেট টুর্নামেন্ট হবে আটটি শহরকে নিয়ে।
সাধারণ টি-টোয়েন্টি ম্যাচের থেকেও ২০ বল কম খেলা হবে এখানে। আয়োজকদের মূল চিন্তা দর্শক আকর্ষণ বাড়ানো। ১০০ বলের ম্যাচ হলেও ক্রিকেট ঐতিহ্য ভাঙতে চায়নি আয়োজকরা। ইসিবির বোর্ড সভায় ক্রিকেট কমিটির সুপারিশকৃত পরিবর্তিত নিয়মের অনুমোদন দেওয়া হয়। সেখানে বলা হয়েছে ২০২০ সাল থেকে ১০০ বলের ক্রিকেটের আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হবে।
এক বিবৃতিতে ইসিবি এ বিষয়ে জানায়, ‘ক্রিকেট কমিটির সুপারিশকৃত ১০০ বলের নতুন প্রতিযোগিতার নিয়মাবলিতে অনুমোদন দিয়েছে বোর্ড। এই প্রতিযোগিতার প্রতিটি ইনিংস হবে ১০০ বলের। যেখানে পাওয়ার প্লে থাকবে ২৫ বলের। প্রত্যেক ১০ বল পর পর ওভার পরিবর্তিত হবে। একজন বোলার টানা ৫ কিংবা ১০ বল করতে পারবেন। তবে সর্বোচ্চ ২০ বলের বেশি করতে পারবেন না।’
এছাড়া, সুপারিশকৃত ১০০ বলের নতুন প্রতিযোগিতার নিয়মে থাকছে পাওয়ার প্লের ২৫ বলে ৩০ গজের বৃত্তের বাইরে থাকতে পারবে মাত্র ২ জন ফিল্ডার। প্রতি ইনিংসেই আড়াই মিনিট করে স্ট্র্যাটেজিক টাইম আউট পাবে ফিল্ডিং দল। পাঁচ সপ্তাহব্যাপী হবে দ্য হান্ড্রেড টুর্নামেন্ট।
গত এপ্রিলে নতুন ফরম্যাটের ক্রিকেট ম্যাচ আনার প্রস্তাব দিয়েছিল ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড। তবে এ ফরম্যাট নিয়ে শুরুতে বিতর্ক শুরু হলেও, পরে বলা হয়েছে মূলত দর্শক আকর্ষণ বাড়াতেই এমন প্রস্তাব দিয়েছিল তারা। খেলা হবে সাউদাম্পটন, বার্মিংহাম, লিডস, লন্ডন, ম্যানচেস্টার, কার্ডিফ, এজবাস্টন এবং নটিংহ্যাম্পশায়ারে।
শীর্ষস্থানীয় ইংলিশ ১৮টি কাউন্টি দলের মধ্যে ১৭টি দলই রাজি হয়েছে ১০০ বলের ক্রিকেটের এসব নিয়মকানুনের ব্যাপারে। পুরুষদের পাশাপাশি এই ১০০ বলের নতুন ফরম্যাটে নারীদের লিগও চালু হবে। আর তাতে সম্প্রচার প্রতিষ্ঠান সহ ক্রিকেটাররাও নাকি বেশ আগ্রহী। তবে, নিয়মকানুন প্রকাশ করলেও এখনো টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণকারী দলের নাম, তাদের জার্সির রং কিংবা খেলোয়াড়দের তালিকা প্রকাশ করেনি ইসিবি।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close