সিলেট থেকে ধানের শীষের প্রচারণা শুরু

সিলেট থেকেই শুরু করা হলো জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচনী প্রচারণা। আজ বুধবার দুপুরে ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে সিলেটে এসে প্রচারণা শুরু করার কথা ছিল। কিন্তু বাংলাদেশ বিমানের বিলম্ব ফ্লাইটের কারণে প্রায় ৩ ঘণ্টা দেরিতে বিকেল ৪টা ১০ মিনিটে তারা সিলেটে পৌঁছেন। ওখান থেকে সাড়ে ৪টার দিকে তারা আসেন হযরত শাহজালাল (রহ.) মাজারে। এ সময় ড. কামাল হোসেনের সঙ্গে সিলেটে আসেন- ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা আসম আবদুর রব, কাদের সিদ্দিকী বীরউত্তম, ড. জাফরউল্লাহ চৌধুরী ও বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান।

আজ ১১টা থেকে দরগাহ এলাকায় অবস্থান নেন সিলেট বিএনপি ও ঐক্যফ্রন্টের নেতারা। সিলেট জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আলী আহমদ, মহানগর বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আজমল বখত সাদেকের নেতৃত্বে বিএনপির নেতারা মাজারের প্রধান ফটকে অবস্থান নেন। এ সময় তারা হাতে জাতীয় পতাকা ও ধানের শীষ নিয়ে মিছিল করতে থাকেন। কয়েকশ’ নেতাকর্মী অবস্থান নিয়ে ঐক্যফ্রন্টের নেতাদের অপেক্ষায় থাকেন। এ সময় সিলেট-১ আসনের বিএনপির প্রার্থী খন্দকার আবদুল মুক্তাদিরের পক্ষে দরগাহ এলাকায় একটি পথসভার আয়োজন করে বিএনপি। কিন্তু বেলা দুই টার দিকে পুলিশের একটি দল সেখানে গিয়ে বিএনপি নেতাদের পথসভা করতে নিষেধ করে। পরে পুলিশের উপস্থিতিতে প্রধান ফটকের বিভিন্ন স্থানে রাখা মাইক খুলে নেয়া হয়। সরিয়ে দেয়া হয় অস্থায়ী মঞ্চ। এ সময় সেখানে উপস্থিত বিএনপির নেতারা সাংবাদিকদের জানান, পুলিশ তাদের পথসভা করতে দিচ্ছে না। তারা জোরপূর্বক এসে মাইক সরিয়ে নিয়ে গেছে।

এদিকে বিকেল ৩টার দিকে লোকে লোকারণ্য হয়ে যায় মাজার এলাকা। বিএনপিসহ ঐক্যফ্রন্টের নেতারা মাজার এলাকায় এসে অবস্থান নেন। ড. কামাল হোসেনসহ সিনিয়র নেতারা আসার পর মিছিলে মিছিলে সরব হয়ে উঠে মাজার প্রাঙ্গণ। মাজারে পৌঁছে কাদের সিদ্দিকী, ড. জাফরউল্লাহ ও নজরুল ইসলাম খান মাজারের উপরের অংশে গিয়ে জিয়ারত করেন। অসুস্থ থাকার কারণে ড. কামাল হোসেন নেতাকর্মী বেষ্টিত অবস্থায় নিচে চেয়ারে বসে জিয়ারত করেন।

এদিকে মাজার জিয়ারত করে বেরিয়ে এসে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি কাদের সিদ্দিকী সাংবাদিকদের বলেন, এখানে এসে ঐক্যফ্রন্টের বিজয় দেখতে পাচ্ছি। আমরা মাজার জিয়ারতে এসে ঐক্যফ্রন্টের নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করলাম। আজকে দেশে মানুষের কোনো সম্মান নেই, অধিকার নেই। সরকার আমাদের সহযোগিতা করছে না। আমরা সিলেটে এসে মানুষের যে উচ্ছ্বাস দেখলাম সেটি যদি কাজে লাগানো যায় ঐক্যফ্রন্টের বিজয় দমাতে পারবে না। এবার ভোটারের বিজয়, জনগণের বিজয় হবে ইন্‌শাআল্লাহ। ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে ঐক্যফ্রন্টের বিজয় নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close