মার্কিন কংগ্রেস সদস্যের দৌঁড়ে প্রথম মুসলিম নারী

tahirahএকটি ব্যতিক্রমী দৃশ্য- স্যামন গোলাপি হিজাব পড়া একজন মহিলা ম্যাসাচুসেটসের ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণের জায়গায় দাঁড়িয়ে রাস্তায় চলাচলরত গাড়িতে বিভিন্ন মানুষের কাছে তাকে কংগ্রেস সদস্য নির্বাচিত করার জন্য ভোট চাইছেন।
তাহেরা আমাতুল-ওয়াদুদ নামের এই নারী প্রার্থী একজন পথচারীর সঙ্গে কুশল বিনিময় করছেন, বলছেন আপনি কেমন আছেন। বিরক্ত হয়ে অনেক গাড়ির চালক দীর্ঘ সময় হর্ন বাজাচ্ছে। কৌতূহলী হয়ে চালকরা জানালা দিয়ে মাথা বের করে খেয়াল করছে। কিছু চালক খেয়াল না করে চলে যাচ্ছে।
আমাতুল-ওয়াদুদ সাত সন্তানের জননী, একজন আইনজীবী, একজন সমাজ কর্মী এবং একজন মুসলমান। তিনি সূর্যোদয়ের আগে ঘুম থেকে ওঠেন। পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়েন এবং রোজা রাখেন।
তার বয়স ৪৪ বছর। জীবনে অনেক বড় বাধার সম্মুখীন হয়েছেন উল্লেখ করে বলেন, নির্বাচনী এলাকার বেশির ভাগ মানুষই শ্বেতাঙ্গ, এখানে খ্রিষ্টান ক্যাথলিক অধ্যুষিত এলাকায় প্রথম মুসলিম কংগ্রেস সদস্য নির্বাচিত হওয়ার একটি বড় বাধা। কিন্তু এটি তার জন্য কোনো ধর্মের বিষয় না, এটি নীতি নির্ধারণের বিষয়। এটি ভালো প্রতিনিধিত্বের বিষয় এবং পশ্চিম ম্যাসাচুসেটস এলাকায় জীবনমান উন্নয়নের বিষয়। এই এলাকায় অন্যতম সমস্যা বেকারত্ব।
এ ব্যাপারে তিনি এএফপিকে বলেন, আমি সবসময় ধর্মীয় কথা বলি না কারণ আমি ধর্মীয় আলোকে নেতৃত্ব করতে চাই না। এবছর কংগ্রেস সদস্যের দৌড়ে সদা হাসি মুখে থাকা আইনজীবী আমাতুল-ওয়াদুদ নারীর জাগরণের অংশ এবং তিনি একজন প্রগতিশীল ডেমোক্রেট। যিনি প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের বিরোধী মনোভাবে উদ্বুদ্ধ।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close