হিলারিই হবেন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট

Hillaryহট্টগোল, গলাবাজি, ভোটারদের ওপর জোরজবরদস্তি যাই হোক না কেন, হোয়াইট হাউস শেষ পর্যন্ত হিলারি ক্লিনটনেরই হবে।
সোজা কথায়, যুক্তরাষ্ট্রের আসন্ন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডেমোক্রেটিক দলীয় প্রার্থী হিলারিই বিজয়ী হবেন। প্রতিদ্বন্দ্বী রিপাবলিকান দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের চেয়ে বড় ব্যবধানেই জয়ী হবেন তিনি।
একটি-দুটি নয়, কম করে হলেও হিলারি ইলেক্টোরাল কলেজের অন্তত ১২৬ ভোট পেছনে ফেলবেন ট্রাম্পকে। যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনী পূর্বাভাস বিশারদ সংস্থা মুডি’স অ্যানালিটিক্স মঙ্গলবার এ আগাম ঘোষণা দিয়েছে।
মুডি’স অ্যানালিটিক্স এ দিন ঢাকঢোল পিটিয়ে ঘোষণা দিয়েছে, মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচন-২০১৬-তে আবারও ডেমোক্রেটিক দলই জিতবে। ইলেক্টোরাল কলেজের ৫৩৮ ভোটের মধ্যে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী হিলারি পাবেন ৩৩২ ভোট। রিপাবলিকানের ট্রাম্প পাবেন ২০৬ ইলেক্টোরাল ভোট। মুডি’স করপোরেশনের মুখপাত্র বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ ড্যান হোয়াইট এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ ঘোষণা দেন।
যুক্তরাষ্ট্রের গত আট বছরের রাজনীতি, অর্থনীতি, শিক্ষা-ব্যবসা, স্বাস্থ্যনীতি ও সামাজিক নিরাপত্তার ওপরে টানা এক মাসের গবেষণা শেষে মঙ্গলবার এ ঘোষণা দেন ড্যান। মুডি’স অ্যানালিটিক্স বা মুডি’স করপোরেশনের প্রেসিডেন্ট নির্বাচন-সংক্রান্ত এ মুডি’স মডেল ঘোষণা এ বছরই নতুন নয়। ১৯৮০ সালের পর থেকে প্রতি বছরই ভোটের ঠিক এক সপ্তাহ আগে নির্বাচনের আগাম ফল ঘোষণা করে মুডি’স অ্যানালিটিক্স।
অবিশ্বাস্য হলেও সত্য, গত ৩৬ বছরে সংস্থাটির একটি পূর্বাভাসও ভুল বা অতিরঞ্জিত প্রমাণিত হয়নি। এ পর্যন্ত মোট নয়টি নির্বাচনের আগাম ফল ঘোষণা করেছে মুডি’স। এর একটিতেও পরিসংখ্যানের কোনো হেরফের হয়নি। মুডি’স অ্যানালিটিক্সের পরিসংখ্যানে যুক্তরাষ্ট্রের সুইং স্টেট বা দোদুল্যমান রাজ্যখ্যাত ১২টি অঙ্গরাজ্য অবশেষে হিলারির পেছনেই ছুটবে। সুইং স্টেটের অতিমাত্রায় ‘বেয়াড়া রাজ্য’_ নেভাদা, ফ্লোরিডা, পেনসিলভানিয়া, কলোরাডোতেও হিলারিরই জয়জয়কার হবে। রিপাবলিকান এবং অভিষেক দল বা নতুন প্রার্থীদের মধ্যে বাকি ৫০ ভাগ ভোট ভাগাভাগি হয়ে যাবে।
অন্য রাজ্যগুলোতেও হিলারির মুখ উজ্জ্বল থাকবে। কারণ গত চার বছরে ক্ষমতাসীন ডেমোক্রেটিক দল জ্বালানি তেল এবং বাড়ি ভাড়া সব সময় নিয়ন্ত্রণে রেখেছে। ডেমোক্র্যাটের আমলে ব্যক্তি উপার্জন বেড়েছে শতকরা ২ ভাগ।
মুডি’স আরও বলেছে, যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে জনপ্রিয় প্রেসিডেন্ট ছিলেন রিপাবলিকান রোনাল্ড রিগান। তার পরই চলে আসেন ডেমোক্র্যাটের বর্তমান প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা।
আর হিলারি ক্লিনটন হতে চলেছেন মার্কিনিদের ইতিহাসে তৃতীয় জনপ্রিয় প্রেসিডেন্ট। এর আগে রয়টার্স-ইপসোসের পূর্বাভাসও একই ইঙ্গিত দিয়েছিল।
জরিপে বলা হয়েছিল, এবারের হিলারি ক্লিনটনের নির্বাচনে জেতার সম্ভাবনা ৯৫ শতাংশ। কমপক্ষে ২৭৮ ইলেক্টোরাল ভোট পাবেন তিনি।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close