বাজেট সম্পর্কে মেয়র জন বিগস: সরকার কানে তালা দিয়েছে

টাওয়ার হ্যামলেটসের নির্বাহী মেয়র জন বিগস চ্যান্সেলার ঘোষিত বাজেটের তীব্র সমালোচনা করে বলেছেন এটি পরিষ্কার যে সরকার তার কঠোর ব্যয় সংকোচন নীতি থেকে সরে আসেনি। তারা মানুষের দূর্দশা সম্পর্কে অবহিত নয়। তাদের কানে তালা। এই বাজেটের ফলে সোশাল সিকিউরিটি খাতে বাজেট কাট অব্যাহত থাকবে, রেগুলার পুলিশের জন্য এক পেনিও বরাদ্দ করা হয়নি। এছাড়া সরকারের অন্যান্য বিভাগের বাজেট যে কাটা হবে না এসম্পর্কেও এতে নূন্যতম কোন গ্যারান্টি নেই।

উল্লেখ্য, চ্যান্সেলার ফিলিপ হ্যামন্ড ২৯ অক্টোবর, সোমবার হাউজ অব কমন্সে আগামী অর্থ বছরের বাজেট পেশ করেন। এর পরপরই টাওয়ার হ্যামলেটসের নির্বাহী মেয়র জন বিগস এই প্রতিক্রিয়া জানান।

মেয়র জন বিগস বলেন, বাজেটে ইউনিভার্সেল ক্রেডিট ওয়ার্ক এলাউন্সের প্রস্তাবিত বাজেট কাটকে বন্ধ করা হয়নি। উল্টো প্রতিদিনই পরিবারগুলোর উপর ইউনিভার্সেল ক্রেডিট এর নেতিবাচক খবর প্রকাশিত হচ্ছে। এব্যাপারে সরকার একেবারে কানে তালা দিয়ে রেখেছে।

জন বিগস বলেন, বাজেটে কাউন্সিলগুলোর জন্যও কোন সুখবর নেই। ২০১০ সালে সরকারের বাজেট কাট শুরু হবার পর থেকে টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল তার মূল বাজেটের ৬৪% হারিয়েছে। আর এর মারাত্মক নেতিবাচক প্রভাব পড়েছে সমাজে। চ্যান্সেলার তার বাজেটে লোকাল গভর্নমেন্টের ১.৩ বিলিয়ন ফান্ড ফিরিয়ে দেয়া সম্পর্কে কিছুই বলেননি। ফলে অনেক কাউন্সিলই বিপদসীমার মধ্যে রয়েছে, এমনকি কয়েকটি দেউলিয়া হবার ঝুঁকিতেও রয়েছে।

মেয়র বলেন, আরো ভয়ংকর তথ্য হচ্ছে চ্যাঞ্চেলার নিজেই শিকার করেছেন যে, কোন ডিল ছাড়াই ব্রিটেন ইউ ত্যাগ করলে আরেকটি জরুরী বাজেট ঘোষনা করা হবে। তার মানে হচ্ছে বাজেট কাট শেষ হয়নি। এমনকি দিন দিন এটি আরো বাজে দিকে যাচ্ছে।

জন বিগস বলেন, দেশকে এই ব্যয় সংকোচন নীতি থেকে বের করে পাবলিক সার্ভিসগুলোর জন্য ফান্ড অব্যাহত রাখা একমাত্র লেবার সরকারের পক্ষেই সম্ভব।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close