তুরস্ক ২০২০ সালে বিশ্বের ৯৯টি দেশে গাড়ি বিক্রি করেছে

তুরস্ক ২০২০ সালে দেশে প্রস্তুত বাস, মিনিবাস ও মিডিবাস বিশ্বের ৯৯টি দেশে রফতানি করেছে। এর ফলে দেশটির আয় হয়েছে দেড় বিলিয়ন মার্কিন ডলারেরও বেশী। তুরস্কের অটোমোটিভ ইন্ডাষ্ট্রি এক্সপোর্টাস অ্যাসোসিয়েশন (ওআইবি) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

২০২০ সালে ইউরোপীয় দেশসমূহে সবচেয়ে বেশী সংখ্যক বাস, মিনিবাস ও মিডিবাস বিক্রি হয়েছে। এক্ষেত্রে ফ্রান্স হচ্ছে তুরস্কের তৈরী বাসের সবচেয়ে বড়ো বাজার, যা প্রায় ১৮ শতাংশ এবং আমদানির পরিমাণ ২৮৯.৭ মিলিয়ন ডলার। ২য় স্থানে রয়েছে জার্মানী, যার আমদানির পরিমাণ ২৬৪.৭ মিলিয়ন ডলার। ইটালির স্থান তৃতীয়, যে ১৩১.৯ মিলিয়ন ডলারের গাড়ি আমদানি করেছে তুরস্ক থেকে। দু’টি দেশের আমদানির পরিমান যথাক্রমে ১৭ ও ৮ শতাংশ। এই ৩টি দেশে গত বছর তুরস্কের বিক্রয় তার বাস, মিনিবাস ও মিডিবাসের মোট বিক্রির ৪৪.৯১ শতাংশ।
ইতোমধ্যে মরক্কো ঐসব দেশের মধ্যে অন্তর্ভুক্ত হয়েছে, যে সব দেশ ২০২০ সালে তুরস্কের বাস আমদানি বৃদিধ করেছে। এক্ষেত্রে মরক্কো ছিলো চতুর্থ। গত ২০১৯ সালে দেশটি ৪৫.৩৬ মিলিয়ন ডলারের তুর্কি গাড়ি আমদানি করলেও গত বছর তা বেড়ে দাঁড়ায় ৭৫.২ মিলিয়ন ডলার। এক্ষেত্রে বার্ষিক বৃদ্ধি ৬৬ শতাংশ।
আমদানি ক্ষেত্রে জর্জিয়ার অবস্থান ছিলো পঞ্চম, যা ৯৬ শতাংশ বেড়ে দাঁড়ায় ৫১.৯ মিলিয়ন ডলার। এছাড়া তুরস্কের বাস, মিনিবাস ও মিডিবাস আমদানি ক্ষেত্রে সুইডেন, সৌদী আরব ও মিশরও উল্লেখযোগ্যভাবে এগিয়ে এসেছে। সুইডেন ২০২০ সালে গাড়ি আমদানি করে ২২.৩ মিলিয়ন ডলারের, এর আগের বছরের চেয়ে প্রায় ৩৪৮ শতাংশ বেশী। সৌদী আরবের দাঁড়ায় ৬.৪ মিলিয়ন থেকে ৩৪৮ শতাংশ বেড়ে ২২.৩ মিলিয়ন ডলার।
ইতোমধ্যে মিশরের গাড়ি আমদানির পরিমাণ ১৬৪০০০ ডলার থেকে বেড়ে দাঁড়ায় ১৩.৬ মিলিয়ন ডলার। এছাড়া তুর্কী গাড়ি খাত ২০২০ মানে প্রথমবারের মতো লিবিয়া, রুয়ান্ডা, উরুগুয়ে, মাদাগাস্কার, কঙ্গো, মালয়েশিয়া ও গিনিতে এধরনের গাড়ি বিক্রি করে।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close