আরব বিশ্বের মঙ্গল অভিযান শুরু আমিরাতের হাত ধরে

তেলের ওপর নির্ভরতা কমিয়ে বৈজ্ঞানিক ও প্রযুক্তিগত সক্ষমতা বাড়ানোর ধাপ হিসেবে মঙ্গল গ্রহে অভিযান শুরু করল সংযুক্ত আরব আমিরাত। আরব বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে সোমবার সফলভাবে মঙ্গলের উদ্দেশে মহাকাশযান উৎক্ষেপণ করেছে দেশটি। সোমবার স্থানীয় সময় সকাল ৬টা ৫৮ মিনিটে জাপানের তানেগাশিমা মহাকাশ কেন্দ্র থেকে উৎক্ষেপণ করা হয় ‘হোপ’ নামের মহাকাশ যানটি। প্রায় সাত মাসে ৫০০ মিলিয়ন কিলোমিটার যাত্রা শেষে এটি মঙ্গল গ্রহের কক্ষপথে পৌঁছানোর কথা। ২০২১ সালের ফেব্রম্নয়ারিতে সেখানে পৌঁছে যানটি লাল গ্রহটিকে প্রদক্ষিণ করবে এবং মঙ্গলের আবহমন্ডল সম্পর্কে পৃথিবীতে তথ্য পাঠাবে।
১৪ জুলাই থেকে এই মিশন শুরুর কথা ছিল, কিন্তু খারাপ আবহাওয়ার কারণে তা পিছিয়ে যায়। উৎক্ষেপণের এক ঘণ্টা পরই এটি সোলার প্যানেলের মাধ্যমে শক্তি অর্জনের ব্যবস্থা গ্রহণ করে এবং রেডিও কমিউনিকেশন প্রতিষ্ঠা করে। এই মিশনে ২০০ মিলিয়ন ডলার খরচ হচ্ছে বলে জানান আমিরাতের উচ্চতর বিজ্ঞানবিষয়কমন্ত্রী সারাহ আমিরি। দুইবার পিছিয়ে যাওয়ার পর সফলভাবে আকাশে মহাকাশযান উৎক্ষেপণের পর স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন তিনি। তার মতে, ৫১ বছর আগে এই দিনে (২০ জুলাই) অ্যাপোলো ১১-কে চাঁদে নামতে দেখে মার্কিনিরা যেমন খুশি হয়েছিল, ঠিক তেমন উচ্ছ্বাসে ভেসে উঠেছে আমিরাতবাসীরা। যুক্তরাষ্ট্র ও চীনের পর তৃতীয় দেশ হিসেবে এই মাসে আমিরাত মঙ্গলে মহাকাশযান পাঠালো। ২১১৭ সালের মধ্যে মঙ্গলে স্থায়ীভাবে বসবাস করার পরিকল্পনাও করছে দেশটি।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Back to top button
Close