মুসলিম বিদ্বেষ নিয়ে শ্রীলংকাকে ওআইসি’র সতর্কতা

সম্প্রতি শ্রীলংকায় মুসলিম বিদ্বেষী ঘটনা বৃদ্ধি পাওয়ার ব্যাপারে দেশটিকে সতর্ক করেছে ইসলামিক সহযোগিতা সংগঠন (ওআইসি)। বুধবার বিশ্বের ৫৭টি মুসলিম দেশের সদস্য বিশিষ্ট সংগঠনটি এক বিবৃতিতে জানায়, ওআইসি খুব কাছ থেকে শ্রীলংকায় মুসলিমদের বিষয়টি পর্যবেক্ষণ করছে। এ খবর দিয়েছে সাউথ এশিয়ান মনিটর।

খবরে বলা হয়, জেদ্দা-ভিত্তিক সংগঠনটি শ্রীলংকার মুসলিমদের ওপর বিভিন্ন নিপীড়ন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে। বর্তমান পরিস্থিতি নিয়ে তারা বলছে, দেশটিতে হঠাৎ একটি সম্প্রদায় মুসলিমদের হুমকি, মুসলিম বিরোধী বিশ্লেষণ ও বিদ্বেষমূলক বক্তব্য দেয়ার ঘটনা বাড়িয়ে দিয়েছে। শ্রীলংকা কর্তৃপক্ষকে সতর্ক করে ওআইসি বলেছে, দেশটিতে মুসলিমদের বিরুদ্ধে ঘৃণা বেড়েছে যা অসহনীয়। এ অবস্থায় দেশটিতে মুসলিম সম্প্রদায়ের নিরাপত্তা ও সুরক্ষা দেয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে।

উল্লেখ্য, শ্রীলংকার মোট জনসংখ্যার ৯.৭ শতাংশ মুসলিম। চলতি বছর ইস্টার সানডেতে শ্রীলংকায় খ্রিস্টান ধর্মালম্বীদের লক্ষ্য করে চারটি গির্জা, তিন হোটেল ও এক বাড়িতে আত্মঘাতী বোমা হামলা চালিয়েছে স্থানীয় দু’টি চরমপন্থি মুসলিম দল। দল দু’টি জঙ্গি গোষ্ঠী আইএস সংশ্লিষ্ট ছিল। ওই হামলায় প্রাণ হারায় ২৫০ জনের বেশি মানুষ।

আহত হয় আরো ৫০০ জন। ওই ঘটনার পর থেকে দেশটিতে মুসলিম বিদ্বেষ উল্লেখযোগ্য হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। অনেক জায়গায় মসজিদের ভেতর ঢুকে ভাংচুর করা হয়েছে। মুসলিম ব্যবসায়ীদের দোকান ও ব্যবসা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে, বাড়ি থেকে বের করে দেয়া হয়েছে, অন্যত্র সরে যেতে বাধ্য করা হয়েছে, এমনকি প্রাণনাশের হুমকিও দেয়া হয়েছে অনেককে। ওআইসি সেদিকে ইঙ্গিত করে বলেছে, সন্ত্রাস কোনো ধর্ম বা সম্প্রদায় করে না, বরং চরমপন্থীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া উচিত।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...

Close
Close