মিথ্যা সংবাদ প্রকাশের দায়ে মুসলিম চ্যারিটিকে ক্ষতিপূরণ দিচ্ছে ‘দ্য টাইমস্ অব লন্ডন’

‘দ্য টাইমস্ অব লন্ডন’ পত্রিকা একটি মুসলিম দাতব্য সংস্থাকে ভুল তথ্য প্রকাশের জন্য ৫০ হাজার পাউন্ড ক্ষতিপূরণ দিতে সম্মত হয়েছে। পত্রিকাটি উক্ত চ্যারিটি অর্থাৎ দাতব্য সংস্থাকে মানবপাচারের সাথে জড়িত বলে অভিযোগ করেছিলো। ২০২০ সালের ডিসেম্বর মাসে টাইমস্ অব লন্ডন অভিযোগ করে যে, লন্ডনভিত্তিক আল-খায়ের ফাউন্ডেশন সোমালীয় অভিবাসীদের ইউরোপ পৌছাঁর কাজে মানবপাচারকারীদের সহায়তা করছে। গত বৃহস্পতিবার যুক্তরাজ্যের হাইকোর্ট জানায় যে, ‘টাইমস্ অব লন্ডন’ উক্ত চ্যারিটি এবং এর প্রতিষ্ঠাতা ইমাম কাসিম রশিদ আহমদকে ক্ষতিপূরন দিতে এবং লেখাটি ক্ষতিকারক ও সম্মানহানিকর হিসেবে গ্রহণে সম্মত হয়েছে।
‘টাইমস্ অব লন্ডন’ হাইকোর্টে বলে, আমরা স্বীকার করছি যে আনীত অভিযোগসমূহ অসত্য ছিলো এবং এখনো তা অসত্য। আমরা আল-খায়ের ফাউন্ডেশন ও এর ট্রাস্টিদের কাছে ক্ষমাপ্রার্থী। পত্রিকা আরো বলে, আমরা আল-খায়ের এবং এর প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টিকে ক্ষতিপূরণ ও আইনী খরচ প্রদানে সম্মত হয়েছি।
এ ব্যাপারে মন্তব্য করতে গিয়ে আহমদ বলেন, মামলাটি মীমাংসায় এটা ছিলো একটি ‘বড়ো বিশ্বাস’। আমি এর ফলাফলে সম্পূর্ন সন্তুষ্টবোধ করছি। দুঃখের বিষয় এই যে, আমাদের এটা করতে হয়েছে। তবে এটা কল্যাণকর যে, সত্য প্রকাশিত হয়েছে। তবে ভালো হতো যদি তারা (টাইমস্ অব লন্ডন) উত্তর প্রদানের জন্য আরো সময় দিতো। তারা আক্ষরিক অর্থে আমাদেরকে কয়েক ঘন্টা সময় দিয়েছিলো, যা যথেষ্ট ছিলো না। তিনি আরো বলেন, যদি তারা যথাযথ সবকিছু পরীক্ষা করে দেখতো, তবে তা হতো চমৎকার বিষয় এবং আমরাও এসব ঝামেলা এড়াতে পারতাম।
ইমাম আহমদ বলেন, ব্যক্তিগতভাবে তার প্রাপ্ত ক্ষতিপূরণের ১০০ শতাংশ আল-খায়ের ফাউন্ডেশনের কর্মকান্ডে ব্যবহার করা হবে। উল্লেখ্য, ২০০৩ সালে ইমাম কাসিম রশিদ আহমদ প্রতিষ্ঠিত আল-খায়ের ফাউন্ডেশন গত ১০ বছরে বিশ্বব্যাপী ২৭৬ মিলিয়ন পাউন্ড বিতরণ করেছে।

আরও পড়ুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও দেখুন...
Close
Back to top button