শিরোনাম :

লন্ডন, আজ বুধবার | ২৫শে এপ্রিল, ২০১৮ ইং | ৮ই শাবান, ১৪৩৯ হিজরী | ১২ই বৈশাখ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | গ্রীষ্মকাল | রাত ১২:০৭

Home » পড়াশোনা » আইটি শিক্ষার্থীদের জন্য এক মিলিয়ন মার্কিন ডলারের শিক্ষাবৃত্তি ঘোষণা

আইটি শিক্ষার্থীদের জন্য এক মিলিয়ন মার্কিন ডলারের শিক্ষাবৃত্তি ঘোষণা

বাংলাদেশী আইটি শিক্ষার্থীদের জন্য এক মিলিয়ন মার্কিন ডলারের স্কলারশিপ বা শিক্ষাবৃত্তি ঘোষণা করেছে যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়াভিত্তিক প্রতিষ্ঠান পিপল্ এন টেক। আগামী এক বছরের মধ্যে উপযুক্ত বাংলাদেশী শিক্ষার্থী এই সুবিধার আওতায় বিনা/স্বল্প খরচে প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি গ্রহণের মাধ্যমে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার প্রযুক্তি খাতে কাজের সুযোগ পাবেন।
পিপল্ এন টেকের প্রতিষ্ঠাতা ও প্রধান নির্বাহী আবু বকর হানিফ নিউইয়র্কে আনুষ্ঠানিকভাবে এই শিক্ষাবৃত্তির ঘোষণা দিয়েছেন। গতকাল মঙ্গলবার বিজ্ঞপ্তিতে এতথ্য জানানো হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, ঘোষিত বৃত্তির আওতায় সফটওয়্যার ট্রেস্টিং বিষয়ে ৫০জন, ডেভেলপারস ৫০জন, ফ্রন্ট এনড ডেভেলপমেন্ট ৫০জন এবং ডেটাবেজ এ্যামিনিস্ট্রেশন ৫০জন শিক্ষার্থীকে পড়াশোনার সুযোগ দেওয়া হবে। বর্তমানে এর প্রতিটি বিষয়ে কোর্স ফি ৪ হাজার মার্কিন ডলার নেওয়া হয়। কিন্তু বৃত্তিপ্রাপ্তরা কোনো ফি ছাড়াই অথবা নামমাত্র ফি’র বিনিময়ে কোর্স সম্পন্ন করে সরাসরি চাকরিতে যোগদানের সুযোগ পাবেন। পিপল্ এন টেক বিগত কয়েক বছর তাদের বিভিন্ন স্কুলের মাধ্যমে ৫ হাজারেরও বেশি তরুন-তরুনীদের প্রশিক্ষণ প্রদান শেষে আমেরিকার প্রযুক্তি-বাজারে সরাসরি কাজের সুযোগ করে দিয়েছে। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য সংখ্যক বাংলাদেশীও রয়েছে। প্রতিষ্ঠানটি ইতোধ্যেই ঢাকায় একটি ক্যাম্পাস চালু করেছে। সেখান থেকে বিপুল সংখ্যক শিক্ষার্থী যুক্তরাষ্ট্রের বিভিন্ন কোম্পানিতে আকষর্ণীয় বেতনে কাজের সুযোগ পেয়েছে।
পিপল্ এন টেক নিয়মিতভাবে মেধাবী শিক্ষার্থীদেরকে বৃত্তি দিয়ে থাকে। সেই ধারাবাহিকতায় এবার আরো বেশি সংখ্যক বাংলাদেশী শিক্ষার্থীকে আমেরিকা ও কানাডায় প্রযুক্তি খাতের সুবিশাল কর্মবাজারে কাজের সুয়োগ করে দেওয়ার লক্ষ্যে নতুন এই বৃত্তি ঘোষণা করেছে। যথানিয়মে মেধা যাচাই পরীক্ষার ভিত্তিতে বিভিন্ন ক্যাটাগরীতে অন্তত ২৫০ জন শিক্ষার্থীকে এই সুবিধা দেওয়া হবে। যুক্তরাষ্ট্র কিংবা কানাডায় বসবাসকারী বাংলাদেশীরা তো বটেই, এমনকি বাংলাদেশে অবস্থানরত উপযুক্ত প্রার্থীরাও নির্ধারিত নিয়মে এই সুবিধা গ্রহণ করতে পারবেন। এ বিষয়ে বিস্তারিত জানতে www.piit.us ঠিকানায় যোগাযোগের জন্য বলা হয়েছে।

আমাদের মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন